বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করার ৩টি উপায়

সম্প্রতিক বাংলাদেশের মধ্যে বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করার আগ্রহ অনেক বেশি বৃদ্ধি পাচ্ছে। অনেকেই আমাদের কাছ থেকে জানতে চেয়েছেন, কিভাবে বিকাশের মাধ্যমে ইনকাম করা যায়? এই বিষয় নিয়ে। যেহেতু বিকাশ বর্তমানে বাংলাদেশের মধ্যে অনেক জনপ্রিয় একটি অনলাইন ফাইন্যান্স সার্ভিস সরবরাহকারী প্রতিষ্ঠান। তাই বিকাশ অনেকের কাছে বিশ্বস্ত এবং বাংলাদেশের মধ্যে প্রায়ই এক কোটিরও বেশি বিকাশের গ্রাহক রয়েছে।

যাই হোক, আজকের লেখাতে আমরা বিকাশ থেকে আপনি কিভাবে অর্থ উপার্জন করতে পারেন? অথবা এই প্লাটফর্ম ব্যবহার করে কিভাবে আপনি অনলাইন থেকে আয় করতে পারেন? সে বিষয়ে আপনার সাথে বিস্তারিত আলোচনা করবো। এই উপায়গুলো যদি আপনারা জেনে যান, তাহলে বিকাশ ব্যবহার করে আপনারা ইনকাম করার সুবিধা গুলো উপভোগ করতে পারবেন। 

বিকাশ থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায়

প্রথমে আমাদেরকে জেনে নিতে হবে, বিকাশ থেকে কিভাবে ইনকাম করা যায়? সে বিষয় সম্পর্কে। আপনারা যদি বিকাশ দিয়ে ইনকাম করতে চান, তাহলে অবশ্যই আপনাদেরকে আয় করার পদ্ধতি জানতে হবে। বিকাশ কিন্তু সরাসরি আপনাকে তাদের কাছ থেকে কোন টাকা পেমেন্ট করেন না। আপনি শুধুমাত্র অনলাইনে বিকাশ প্ল্যাটফর্ম কে ব্যবহার করেই অনলাইন থেকে ইনকাম করার চেষ্টা করতে পারেন।

এখানে আমরা কিভাবে আপনি ইনকাম করার চেষ্টা করতে পারেন। সে বিষয়ে আপনাকে কিছু উপায় শেয়ার করব। তবে এমন নয় যে, আপনি বিকাশ অ্যাপের মাধ্যমে কাজ করবেন। এবং বিকাশ অ্যাপ থেকে আপনাকে প্রতিদিন পেমেন্ট করা হবে। 

বিকাশ থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায়
বিকাশ থেকে কিভাবে টাকা ইনকাম করা যায়

অনলাইনে অনেক প্রথারক রয়েছে। যারা আপনাদেরকে বিকাশ অ্যাপ ব্যবহার করে বিভিন্ন ইনকামের পদ্ধতি দেখানো শুরু করেছে। কিন্তু বিকাশের মাধ্যমে কিন্তু কোনভাবে আপনি ইনকাম করতে পারবেন না। শুধুমাত্র এই বিকাশ ব্যবহার করেই আপনি অন্যান্য প্ল্যাটফর্ম থেকে আপনার উপার্জিত টাকা গুলো নিয়ে আসতে পারবেন।

আরও পড়ুন:   বিটকয়েন কি ও কেন Bitcoin কিভাবে কাজ করে

এবং সে সকল প্লাটফর্মে আবার আপনি বিকাশ থেকে বিনিয়োগ করে টাকা উপার্জন করতে পারবেন। আবার একেবারে এমন নয় যে, বিকাশ থেকে আপনি অর্থ উপার্জন করতে পারবেন না। বিকাশ থেকে আপনি বর্তমান সময়ে শুধুমাত্র একটা মাধ্যম ব্যবহার করে খুব সহজেই অর্থ উপার্জন করতে পারবেন। তবে এক্ষেত্রে আপনার আশেপাশের বন্ধু-বান্ধব এবং আপনার অনলাইনের ফলোয়ারদের কে ব্যবহার করতে হবে। 

বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করার উপায়

বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করার এমন কিছু উপায় আপনাদের সাথে শেয়ার করতে যাচ্ছি। যেগুলো অবশ্যই আপনারা ব্যবহার করে খুব সহজে বিকাশ দিয়ে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। আমরা এখানে যে সকল উপায় গুলো আপনাদের সাথে শেয়ার করবো। এগুলো অবশ্যই বাছাই করা এবং বর্তমানে কাজে দিচ্ছে এরকম কিছু আইডিয়া আপনাদের সাথে শেয়ার করব।

ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো? Freelancing ক্যারিয়ার ও আয় করার উপায়

তবে এখানে যে আইডিয়া গুলো আপনাদের সাথে শেয়ার করা হবে। সেই আইডিয়া থেকে যেটি আপনার জন্য সবচেয়ে উপযুক্ত এবং ভাল মনে হবে। সেই উপায়টি ব্যবহার করে আপনি বিকাশ দিয়ে টাকা ইনকাম করার চেষ্টা করবেন। কোনো কিছু না বুঝে ভুল কোন পদ্ধতি অনুসরণ করবেন না। 

বিকাশ রেফার করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারেন:

সম্প্রতিক সময়ে এটি খুবই জনপ্রিয় একটি বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করার মাধ্যম। যাদের ইউটিউব চ্যানেল রয়েছে অথবা ব্লগ ওয়েবসাইট রয়েছে। তারা কিন্তু বিকাশ অ্যাপ এর বিভিন্ন বিজ্ঞাপন তাদের ব্লগ ওয়েবসাইট এবং ইউটিউব এর মধ্যে প্রমোট করে যাচ্ছে। ফলে তারা হাজার হাজার বিকাশ অ্যাপ রেফার করার সুযোগ পাচ্ছে। এবং প্রতি রেফারে বিনিময় ১০০ টাকা করে বিকাশ থেকে রিওয়ার্ড পাচ্ছে। 

বিকাশ রেফার থেকে টাকা ইনকাম
বিকাশ রেফার থেকে টাকা ইনকাম

আমি নিজেও বিকাশ অ্যাপের মধ্যে অনেকগুলো রেফার যুক্ত করার মাধ্যমে বিকাশ থেকে রিওয়ার্ড পেয়েছি অনেক টাকা। বিকাশ থেকে পুরস্কার পাওয়ার জন্য অবশ্যই আপনাকে ইতিমধ্যে বিকাশ অ্যাপটি ব্যবহার করেনি এমন ব্যক্তির সন্ধান করতে হবে। আপনার আশেপাশে যারা বিকাশ অ্যাপ ব্যবহার করেন না, তাদেরকে আপনি বিকাশ অ্যাপটি ইনস্টল করে দিতে পারেন আপনার রেফার লিংক ব্যবহার করে। যদি তারা বিকাশ অ্যাপ ব্যবহার করতে আগ্রহী না হয়, তাহলে তাদেরকে বুঝাতে পারেন। যখন তারা বিকাশ অ্যাপ ব্যবহার করবে, তখন এখান থেকে তারা ১০০ টাকা ফ্রিতে ব্যবহার করতে পারবে। 

আরও পড়ুন:   ঘরে বসে হাতে লিখে আয় করার ৫ টি দারুণ উপায়

সুতরাং যদি কেউ আপনার কথা শুনে আপনার রেফার লিংক ব্যবহার করে বিকাশ অ্যাপ ইন্সটল করে। ব্যবহারকারী পাবে ১০০ টাকা ও আপনি বিকাশ অ্যাপ থেকে পাবেন ১০০ টাকা রিওয়ার্ড প্রতি রেফারে জন্য। পাশাপাশি যিনি ব্যবহার করবেন ব্যবহারকারী পাবেন আরও বিভিন্ন পুরস্কার। 

ট্রেডিং প্লাটফর্ম এ বিকাশ অ্যাপ দিয়ে বিনিয়োগ করে টাকা আয় করুন

ট্রেডিং প্লাটফর্ম থেকে একসময় বাংলাদেশি আগ্রহী প্রার্থীরা বিনিয়োগ করতে পারত না। কিন্তু বর্তমান সময়ে বিকাশ আসার কারণে এই সকল প্লাটফর্মে বাংলাদেশি টাকায় বিনিয়োগ করা সম্ভব। তবে এই ক্ষেত্রে আপনি যেই ট্রেডিং ওয়েবসাইটে বিনিয়োগ করবেন। সে ওয়েবসাইটে বিকাশ পেমেন্ট গ্রহন করে কি না? সে বিষয়টি আপনাকে প্রথমে যাচাই করে নিতে হবে। কারণ অনেকগুলো ওয়েবসাইট বিকাশ পেমেন্ট গ্রহন নাও করতে পারে। 

মোবাইলে টাকা আয়ের ৩টা সহজ উপায় | মোবাইল দিয়ে ইনকাম

তবে বর্তমান সময়ে বাংলাদেশে অনেকগুলো ট্রেডিং অ্যাপস্ ও ওয়েবসাইট বের হয়েছে। যেগুলোতে আপনি খুব সহজে বাংলাদেশী টাকা বিনিয়োগ করে উপার্জন করতে পারেন। অনেকেই হয়তো বাংলাদেশ থেকে ট্রেডিং করে অনেক ভালো ইনকাম করে যাচ্ছেন। কিন্তু এই বিষয়ে যারা জানেন না। তারা কিন্তু না জেনেই প্ল্যাটফর্মগুলোতে বিনিয়োগ করবেন না। সাধারণত ইকোনমিক্স নিয়ে পড়াশোনা করে এরকম ছাত্র ছাত্রীরা এই সকল প্ল্যাটফর্মগুলোতে বিনিয়োগ করে ভালো সফলতা পেতে পারে। 

ট্রেডিং প্লাটফর্ম থেকে বিকাশ দিয়ে আয় করুন
ট্রেডিং প্লাটফর্ম থেকে বিকাশ দিয়ে আয় করুন

কেননা এই সকল ট্রেডিং ওয়েবসাইটগুলোতে আপনাকে বুঝতে হবে কোন সময় দর বৃদ্ধি পাচ্ছে? আর কোন সময় দর হ্রাস পাচ্ছে? আপনি যেই পরিমান এখানে বিনিয়োগ করবেন, সে পরিমাণের চেয়ে দ্বিগুণ প্রফিট পাওয়ার সম্ভাবনাও থাকে। এই প্ল্যাটফর্মগুলোতে কিন্তু অবশ্যই আপনাকে ট্রেডিংয়ের যে বিষয়টি সেটি বুঝতে হবে। না বুঝে যদি আপনি বিনিয়োগ করেন, তাহলে আপনার সব টাকা লস হতে পারে, অথবা আপনার বিনিয়োগকৃত টাকা থেকে একটি অংশ লোকসান হতে পারে। 

আরও পড়ুন:   নগদ মোবাইল ব্যাংকিং সঞ্চয় হার ও মুনাফা | Nagad Mobile Banking

রিওয়ার্ড পয়েন্ট ব্যবহার করে বিকাশ থেকে আয় করুন

বাংলাদেশের মধ্যে বিকাশ সব সময় নতুন কিছু নিয়ে আসতে পছন্দ করেন। গ্রাহকদের জন্য ঠিক একই রকম আরও একটি নতুন রিওয়ার্ড পয়েন্ট সিস্টেম চালু করেছে। বিকাশ পয়েন্ট সিস্টেম ব্যবহার করে আপনি খুব সহজে বিকাশ থেকে আয় করতে পারবেন। এক্ষেত্রে আপনি কত টাকা লেনদেন করতে চান? এবং কোন কোন জায়গায় পেমেন্ট করতে চান? সেই নির্দেশনা অনুযায়ী বিভিন্ন মাধ্যম থেকে অনেকগুলো রিওয়ার্ড পয়েন্ট উপার্জন করতে পারবেন। 

ঘরে বসে অনলাইনে আয় করার ৫টি উপায়

রিওয়ার্ড পয়েন্ট গুলোতে বিকাশ থেকে বিভিন্ন নামে নামকরণ করা হয়েছে। অর্থাৎ আপনার নির্দিষ্ট পরিমাণ পয়েন্ট জমা হলে আপনি একটি স্তর অতিক্রম করবেন। এবং আপনি একটি স্তর সংগ্রহ করতে পারবেন। 

রিওয়ার্ড পয়েন্ট ব্যবহার আয় করুন
রিওয়ার্ড পয়েন্ট ব্যবহার আয় করুন

ব্রোঞ্জ, সিলভার, টাইটেনিয়াম, গোল্ড, প্লাটিনাম, ও হীরা এইসকল স্তর অনুযায়ী প্রার্থীর বিভিন্ন রেওয়ার্ড সংগ্রহ করতে পারবেন। সাধারণত যদি আপনি এই রিওয়ার্ড সিস্টেমটি ব্যবহার করতে না চান, তাহলে এটি আপনি ডিসেবল করে রাখতে পারবেন। তবে এটি একবার এনাবল করে ফেললে আর ডিসেবল করা সম্ভব হবে না। তবে এটি ব্যবহার করলে অবশ্যই আপনার লাভ। কে না চায় নিজের লাভ হোক। সুতরাং আপনি যদি লাভ করতে চান, তাহলে অবশ্যই এই বিকাশের রিওয়ার্ড পয়েন্ট সিস্টেম ব্যবহার করতে পারেন। 

বিকাশ থেকে টাকা আয় করার উপায়

এই ব্লগ পোস্টের মধ্যে আমরা বিকাশ থেকে আয় করার ৩টি কার্যকর উপায় আপনাদের সাথে শেয়ার করেছি। এই ৩টি উপায়ে ব্যবহার করে আপনারা খুব সহজেই বিকাশ থেকে ইনকাম করতে পারবেন। বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করা খুব সহজ। যদি আপনি সঠিকভাবে লেনদেন করতে পারেন। পরবর্তীতে বিকাশ থেকে আরও কিছু ইনকামের পদ্ধতি আমরা এই আর্টিকেলটিতে যুক্ত করার চেষ্টা করব।

যেন আপনাদেরকে আমরা আরো কিছু ভিন্ন আইডিয়া শেয়ার করতে পারি। বিকাশ থেকে আয় করার যতগুলো উপায় আমরা শেয়ার করেছি। এই উপায়গুলো দিয়ে ইনকাম করতে হলে প্রথমে আপনাকে বিকাশ অ্যাপ ইন্সটল করে নিতে হবে আপনার মোবাইল ফোনে।

“বিকাশ থেকে টাকা ইনকাম করার ৩টি উপায়”-এ 1-টি মন্তব্য

মন্তব্য করুন